সর্বশেষ সংবাদ

শুক্রবার রাজশাহীতে ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশ,১২ শর্তে অনুমতি: রাজশাহী-ঢাকা বাস চলাচল বন্ধ


মঈন উদ্দীন, রাজশাহী: রাজশাহীতে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টকে সমাবেশের জন্য নির্ধারিত স্থান মাদ্রাসা মাঠে ১২টি শর্তে অনুমতি দিয়েছে পুলিশ। এরআগে বুধবার দুপুরের পর নগরীর গণকপাড়া মোড়ে অনুমতি দেওয়া হলেও রাতে আবার মাদ্রাসা মাঠে অনুমতি দেয় পুলিশ।

শুক্রবার বিকাল ২টা থেকে ৫টা পর্যন্ত এ সমাবেশে ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতারা উপস্থিত থাকবেন। সমাবেশে ব্যাপক জনসমাগম ঘটানোর লক্ষ্য নিয়ে কাজ করছে বিএনপিসহ ঐক্যফ্রন্টের সংশ্লিষ্ট দলগুলো। বুধাবার বিকেলে রাজশাহী মহানগর পুলিশ অনুমতি দেওয়ার পর পরই মাইকিং শুরু হয় রাজশাহীতে। এদিকে সমাবেশকে ঘিরে কয়েকদিন ধরে বিএনপি নেতাকর্মীদের গ্রেফতার ও বাসায় বাসায় তল্লাশিসহ প্রচার-প্রচারণায় বাধার অভিযোগ উঠেছে।

রাজশাহী মহানগর পুলিশের মুখপাত্র ও সিনিয়র সহকারী পুলিশ কমিশনার ইফতেখায়ের আলম জানান, সমাবেশের জন্য ঐক্যফ্রন্টের প্রথম পছন্দ ছিল মাদ্রাসা ময়দান। বিকল্প হিসেবে তারা সাহেববাজার, গণকপাড়া ও মনিচত্বর এলাকার নাম লিখেছিল। প্রথমে কিছু শর্তে গণকপাড়া মোড়ে তাদের সমাবেশের জন্য অনুমতি দেওয়া হয়েছিলো। তবে শেষ পর্যন্ত তাদের দাবির প্রেক্ষিতে মাদ্রাসা মাঠে কিছু শর্ত সাপেক্ষে অনুমতি দেওয়া হয়।

এদিকে সমাবেশকে কেন্দ্র কওে বৃহস্পতিবার দুপুরে মহানগর বিএনপির কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করেন জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের রাজশাহীর নেতৃবৃন্দ। সংবাদ সম্মেলনে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্ট মিজানুর রহমান মিনু বলেন, রাজশাহীর মাদ্রাসা মাঠে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশ থেকে খালেদা জিয়ার মুক্তি ও সরকার পতনের গণআন্দোলনের আহবান আসবে। রাজশাহীর সমাবেশ কেন্দ্র করে বিএনপির নেতাকর্মীদের হয়রানি করার অভিযোগ তুলে মিজানুর রহমান মিনু বলেন, প্রশাসনের অতি উৎসায়ী কর্মকর্তারা নেতাকর্মীদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে তল্লাশীর নামে হয়রানি ও গ্রেপ্তার করছে এবং সমাবেশের প্রচারেও বাধা দেয়ার অভিযোগ করেন তিনি। মিনু বলেন, সমাবেশের মাত্র ১৪ ঘণ্টা আগে ১২টি শর্তে আমরা সমাবেশ করার লিখিত অনুমতি পেলাম। এখন জনসমাগম যেন কম হয় সে জন্য বাস বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। তারপরও এই সমাবেশ সফল হবে এবং এখান থেকেই সুষ্ঠু নির্বাচনের গণআন্দোলন শুরু হবে।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয় জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের রাজশাহীর সমাবেশে জোটের প্রধান ড. কামাল হোসেন, বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল- জেএসডির সভাপতি আ স ম আবদুর রব, কর্ণেল অলি আহম্মেদ, নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না, আন্দালিব রহমান পার্থসহ সিনিয়র নেতাদের যোগ দেয়ার কথা রয়েছে।
এসময় নগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শফিকুল হক মিলন জানান,বুধবার রাতে রাজশাহী মহানগরীর মাদ্রাসা মাঠে সমাবেশে অনুমতি পাওয়াগেছে। তাই তারা প্রস্তুতিও শুরু করে দিয়েছেন। নগরীজুড়ে চলছে মাইকিং। ঐক্যফ্রন্টের কেন্দ্রীয় এবং বিভাগের নেতাকর্মীরা সমাবেশে যোগ দেবেন। সমাবেশ সফল হবে বলেই মনে করেন তিনি। সংবাদ সম্মেলনে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, বিএনপির রাজশাহী বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক শাহীন শওকত, মহানগর বিএনপির সভাপতি ও সাবেক সিটি মেয়র মোহাম্মদ মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল, সাধারণ সম্পাদক শফিকুল হক মিলন, জেএসডির কেন্দ্রীয় কমিটির সিনিয়র সহ-সভাপতি এমএ গোফরান, নগর সম্পাদক মারুফ আহমেদ পিকু, জাসদ নেতা মনির আহমেদ বাবর, শফিকুল আলম বাবর প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।।

রাজশাহী-ঢাকা বাস চলাচল বন্ধ:

রাজশাহী থেকে ঢাকা রুটে সকল বাস চলাচল বন্ধ হয়ে গেছে। বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টার পর রাজশাহী থেকে কোনো বাস ঢাকার উদ্দেশে ছেড়ে যায়নি। পরিবহন নেতারা বলছেন, নাটোরে বাস শ্রমিকের ওপর হামলার ঘটনায় এ রুটে বাস চলাচল বন্ধ রয়েছে। অন্য রুটে চলছে। তবে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা মিজানুর রহমান মিনুর দাবি, শুক্রবার রাজশাহীর ঐক্যফ্রন্টের জনসভাকে কেন্দ্র করে আকস্মিকভাবে বাস চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা মিজানুর রহমান মিনু বলেন, ঐক্যফ্রন্টের জনভাকে কেন্দ্র করে ঢাকা এবং সিলেটেও একইভাবে বাস বন্ধ হয়েছিল।
এব্যাপারে রাজশাহী সড়ক পরিবহন গ্রুপের সাধারণ সম্পাদক মনজুর রহমান পিটার বলেন, নাটোরে শ্রমিকদের সাথে ঝামেলা হওয়ার কারণে এই রুটে বাস চলাচল বন্ধ রয়েছে। তবে অন্য রুটে বাস চলছে। সমস্যার সমাধান হলে আবারও রাজশাহী-ঢাকা রুটে বাস চলাচল করবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Powered by Dragonballsuper Youtube Download animeshow